আপনার হাতে নেলপলিশ মোটেই টেকে না? যেনে নিন ম্যাজিক মন্ত্র

খুব শখ করে হয়তো নেল পলিশ পরলেন অফিস বা স্কুল থেকে ফেরার পর, বিধি মেনে তা শুকোনোর জন্য যথেষ্ট সময়ও দিলেন, কিন্তু তাও পরদিন সন্ধে হওয়ার আগেই নখের রং চটে গেল? আমরা জানি, খুব মন খারাপ হয় এমনটা হলে। আসলে কি জানেন, নেল পলিশ পরে জলের কাজ করলেই নখের রং চটে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে। তাই বাসন মাজা বা কাপড় কাচার প্রয়োজন পড়লে হাতে গ্লাভস গলিয়ে নেওয়াই বুদ্ধিমানের কাজ। চামচ ব্যবহার করে খেতে পারলে খুব ভালো হয়। তা ছাড়াও কয়েকটি নিয়ম মেনে চলার চেষ্টা করুন, তাতে হয়তো সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে!

নখের স্বাস্থ্য ভালো হলে নেল পলিশ বেশিদিন টেকে। তাই যাঁরা ঘন ঘন পলিশ ব্যবহার করেন, তাঁরা অবশ্যই দু’টি অ্যাপ্লিকেশনের মাঝের বিরতিতে নখের জোর বাড়ানোর চেষ্টা করুন। ম্যানিকিওর করুন নিয়মিত, নেল ক্রিম লাগান, পুষ্টিকর খাবার খাওয়ার উপর জোর দিন। নেল পলিশ লাগানোর আগে অবশ্যই এক পরত রিমুভার বুলিয়ে নেবেন নখের উপর। তাতে নখের উপর জমে থাকা তেল-ময়লা সরে যাবে। যাঁদের নখের স্বাস্থ্য খুব একটা ভালো নয়, তাঁরা অবশ্যই নন-অ্যাসিটোন রিমুভার কিনুন। নেল পলিশ লাগানোর আগে ভালো কোনও বেস কোট লাগিয়ে নিন নখের উপর। পলিশে বাতাসের বুদবুদ থাকলে নখের রং চটে যাবে সহজে, তাই ব্যবহারের আগে অবশ্যই একবার ভালো করে নেল পলিশের শিশিটা ঝাঁকিয়ে নিন। তাতে রং ভালোভাবে মিশে যাবে, থাকবে না এয়ার বাবলও।

নেল পলিশ লাগানোর সময় নখের কোণের দিকগুলো বাদ দেবেন না। পাতলা কোট লাগান আর দু’টি কোটের মাঝে অবশ্যই খানিকক্ষণ বিরতি নিন। তাতে প্রতিটি কোট ভালোভাবে শুকিয়ে যাবে। শেষে লাগিয়ে নিন টপ কোট। মনে রাখবেন, নখ যত আর্দ্রতা হারাবে, তত বাড়বে রং চটার আশঙ্কা। তাই প্রতিবার হাত ধোওয়ার পর নেল অয়েল ব্যবহার করুন। হ্যান্ড স্যানিটাইজ়ার কিন্তু হাত শুকনো করে দেয় বেশি, তাই কোমল কোনও সাবান ব্যবহার করে হাত ধুয়ে নিন।

এত সাবধানতা পালন করে চলার পরেও কিন্তু ছোটখাটো চিপ দেখতেই পাবেন। সে ক্ষেত্রে নেল পলিশ দিয়ে টাচ আপ করে দিন। যাঁরা খুব ক্রিয়েটিভ, তাঁরা স্টোন বা অ্যাক্রিলিক রং দিয়ে রং-চটা নেলপলিশের উপরেও চমৎকার নকশা এঁকে নিতে পারেন কিন্তু! নিজের মনের মতো নেল আর্টের কারিগর হয়ে ওঠা যে এত সহজ, তা জানতেন?

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *